April 7, 2020, 4:26 am

এই কথা কাউকে বললে তোকে খুন করব

নরসিংদীর মাধবদীতে নিজের মেয়েকে ধর্ষণ করেছে এক বাবা। সেইসঙ্গে ধর্ষণের বিষয়টি কাউকে জানালে মেয়েকে হত্যার হুমকি দেয় বাবা।

নির্যাতিত মেয়ের এমন অভিযোগের ভিত্তিতে বুধবার মাধবদীর কাঁঠালিয়া ইউনিয়নের চৌগড়িয়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে ওই বাবাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

গ্রেফতারের পর পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে মেয়েকে ধর্ষণের বিষয়টি অকপটে স্বীকার করে অভিযুক্ত রতন মিয়া (৪৫)। গ্রেফতারকৃত রতন মিয়া চৌগড়িয়া গ্রামের মৃত রেহান আলীর ছেলে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, রতন মাদকাসক্ত। তার স্ত্রী মানসিক প্রতিবন্ধী। মাদক সেবনকে কেন্দ্র করে স্ত্রীর সঙ্গে প্রায়ই ঝগড়া করত রতন মিয়া।

এসব বিষয় নিয়ে স্বামীর সঙ্গে অভিমান করে প্রায় বাপের বাড়ি চলে যেত স্ত্রী। এই সুযোগে ১৫ বছরের মেয়েকে ভয়ভীতি দেখিয়ে প্রায় ধর্ষণ করত রতন। একইসঙ্গে এই বিষয়টি কাউকে জানালে মেয়েকে হত্যার হুমকি দেয়।

দিনের পর দিন বাবার অমানবিক নির্যাতন সইতে না পেরে খালার কাছে পুরো ঘটনা খুলে বলে মেয়েটি। পরে নির্যাতিত মেয়েকে নিয়ে থানায় গিয়ে বাবার বিরুদ্ধে মামলা করে খালা। মামলার পর বুধবার ভোরে অভিযান চালিয়ে রতনকে বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

নির্যাতিত মেয়েটি জানায়, বাবার অমানবিক নির্যাতন সইতে না পেরে খালার কাছে পুরো ঘটনা খুলে বলি। বাবা বলেছিল, এই বিষয়টি কাউকে জানালে তোকে গলা টিপে খুন করব। তাই ভয়ে এতদিন এই কথা বলার সাহস পাইনি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে মাদবদী থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু তাহের দেওয়ান বলেন, নির্যাতিত মেয়েটির খালা এ ঘটনায় মামলা করেছেন। মামলার পর অভিযান চালিয়ে রতন মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে মেয়েকে ধর্ষণের কথা অকপটে স্বীকার করেছে রতন। তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Comments are closed.


     এই জাতীয় আরো খবর